২ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ বুধবার ১৭ জুলাই ২০১৯
Home / প্রবাসী জীবন / কুয়েতে বাংলাদেশী আইকন।

কুয়েতে বাংলাদেশী আইকন।

Bangladeshi icon Maqki Ali in Kuwaitদেশের মায়া ছেড়ে অন্যদেশে চাকুরী বা ব্যবসা বানিজ্য কেউ কি শখে করে? অবশ্যয় না। দেশে থেকে বেকারত্বের অপবাদ শোনা থেকে মুক্তি পেতে। এক সময় বিদেশে বাংলাদেশীদের তেমন প্রভাব ছিলোনা। এখন এর পরিবর্তন হয়েছে কোন কোন দেশে এখন অনেক বাংলাদেশী নেতৃত্ব দিচ্ছে স্থানীয় সরকারের উচ্চ পদে। মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সমুহে এমন সুযোগ না থাকলেও স্থানীয়দের সাথে ব্যবসার সম্পর্ক গড়ে রাজার হালেই অনেকে প্রবাসী জীবন অতিবাহিত করছেন। নামি দামী ব্রেন্ডের গাড়ী আলিশান ফ্লাট দেশ বিদেশ ঘুরাঘুরি তাদের দৈনিন্দন জীবনের সুচি। কুয়েতে এমনই একজন প্রবাসী

মুকাই আলী লুৎফর রহমান কুয়েত প্রবাসী সবার কাছে পরিচিত মাক্কি আলী নামে। অন্য আট দশ জনের মত নিজের পায়ে দাড়াঁতে প্রায় আড়াই যুগ পূর্বে শূন্য হাতে সমুদ্র আর মরুভুমি ঘেরা তৈল সমৃদ্ধ দেশ কুয়েতে এসে প্রবাসীর খাতায় নাম লেখান।  কয়েক বছর কষ্টে কাটলেও আজ তিনি কোটি কোটি টাকার মালিক। অটোমোবাইল, টেলিকম, ফিশিং, ফুড,  রিয়েল স্টেট,  স্টক হোল্ডিং, সুপার মার্কেটসহ অসংখ্য সেক্টরেই তার পদচারনা। নিজ মেধা কঠোর পরিশ্রম আর ভাগ্যের বদৌলতে বর্তমানে তিনি অ্যাম্বাসেডর গ্রুপ অব কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও। প্রতিষ্ঠানের প্রদান অফিস কুয়েত সিটির ব্যায়বহুল বান্যিজিক এলাকা মালিয়ার প্যানাসনিক টাওয়ারের ৩৫ তলা ভবনের ১৫ তলায়। দেশ বিদেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা বিভিন্ন ব্যবসা বানিজ্য অসংখ্য কর্মকর্তা কর্মচারি থাকা সত্যেও এখান থেকেই নিয়ন্ত্রণ করেন তিনি নিজেই। বাংলাদেশেও নিজ জেলায় স্কুল, কলেজ, মসজিদ, মাদ্রাসায় পৃষ্ঠপোষকতার পাশাপাশি বিভিন্ন সেক্টরে বাণিজ্য কেন্দ্র গড়ে তুলেন। কুয়েতে বাংলাদেশীর পাশাপাশি অ্যাম্বাসেডর সুপার মার্কেট এর মাধ্যমে ফিলিপিনো, চাইনিজ, জাপানও থাইলেন্ড এর প্রবাসীদের কাছে অন্যতম সুপার মার্কেট। এই মার্কেটের ৯০ ভাগ কাস্টমার বিদেশী।

তিনি ফিলিপিন সহ বিভিন্ন দেশ থেকে খাদ্য সামগ্রী আমদানী করেন। বাংলাদেশ থেকে কুয়েতে আমদানী করার এক প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান তিনিও এক সময় বাংলাদেশ থেকে পণ্য কুয়েতে আমদানী করতেন। বর্তমানে বাংলাদেশ থেকে কুয়েতে কিছূ আনার বেশ কিছু সমস্যা আছে। সবচেয়ে বড় সমস্যা কার্গো, তার উপরে বাংলাদেশের বিভিন্ন কোম্পানিগুলি অনেক বাধ্যবাদকতা।

 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া হাওয়ালদার পাড়ার মৃত শহিদুল হক ভূইয়ার ছেলে মুকাই আলী লুৎফর রহমান স্ত্রী আর তিন ছেলেকে নিয়ে সুখের সংসার। দুই ছেলেই জন্মসূত্রে যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক। তিনি যুক্তরাষ্ট্র দৈত নাগরীক হয়েও তার সকল পুজি দেশে বিনোয়াগ করার চেষ্টা করছেন। কুয়েতে অ্যাম্বাসেডর গ্রুপ কুয়েতে বাংলাদেশের একটি প্রতিক হয়ে প্রবাসীদের কাছে গর্ব করার মত প্রতিষ্ঠান। মুকাই আলী লুৎফর রহমান কুয়েতে বাংলাদেশ দূতাবাস কর্তৃক স্বীকৃতি প্রাপ্ত একমাত্র ব্যবসায়ী সংগঠন বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল (বিবিসি) কুয়েত এর সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। কুয়েতে বাংলাদেশীদের কাছে কয়েকজন আইকন এর মধ্যে অ্যাম্বাসেডর গ্রুপ অব কোম্পানিজর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও মুকাই আলী লুৎফর রহমান (মাক্কি আলী) একজন।

আরও পড়ুন...

কুয়েতে থান কাপড় ব্যবসা করে ভাগ্য পরিবর্তন করার গল্প ।

কুয়েতে শ্রমিক থেকে ব্যবসায়ী হিসাবে বাংলাদেশীদের একটা অংশ থান কাপড় ব্যবসা করে ভাগ্য পরিবর্তন করার …