Home / দেশ / সারাদেশ / ব্রাহ্মণবাড়িয়া / কসবায় আন্ত:নগর পাহাড়িকা এক্সপ্রেস লাইনচ্যুত

কসবায় আন্ত:নগর পাহাড়িকা এক্সপ্রেস লাইনচ্যুত

মো. অলিউল্লাহ সরকার অতুল : চট্টগ্রাম থেকে ছেড়ে আসা সিলেট অভিমুখী আন্ত:নগর পাহাড়িকা এক্সপ্রেস (৭১৯ আপ) ট্রেন বৃহস্পতিবার ৬ জুন সাড়ে ১২টায় কসবা রেলস্টেশনে লাইনচ্যুত হয়েছে। কসবা স্টেশনের সহকারী স্টেশন মাস্টার আবদুল জব্বার জানান, আন্ত:নগর পাহাড়িকা এক্সপ্রেস (৭১৯আপ) ট্রেনটি স্টেশনের ২ নম্বর লাইনে ঢোকার পথে ৭টি বগি লাইনচ্যুত হয়। তবে এ দুর্ঘটনায় কেউ হতাহত হয়নি। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় ২ নম্বর লাইনের কাঠের স্লিপারগুলো দুমরে-মুচড়ে একাকার হয়ে গেছে। হাজার হাজার যাত্রী সীমাহিন দুর্ভোগে পড়েছে। ঢাকা- চট্টগ্রাম, চট্টগ্রাম-সিলেট ও চট্টগ্রাম-ময়মনসিংহ রেলপথ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আশে-পাশে স্টেশনে দুটি আন্ত:নগর ট্রেনসহ একাধিক লোকাল ট্রেনের যাত্রী আটকা পড়েছে। ধারনা করা হচ্ছে দুর্বল ও অনেক পুরনো স্লিপার হওয়ায় ট্রেনের ভার বহন করতে না পেরে এ দুর্ঘটনার শিকার হয় ট্রেনটি। ফলে চলতি মাসেই এ লাইনে শুধু কসবা এলাকায় ৩টি দুর্ঘটনা সংঘটিত হয়।
স্টেশন সুত্রে জানা যায়, আখাউড়া ও লাকসাম থেকে উদ্ধারকারি ট্রেন ঘটনাস্থলের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছে। এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত উদ্ধার কাজ শুরু হয়নি। ঢাকা- চট্টগ্রাম, চট্টগ্রাম-সিলেট ও চট্টগ্রাম-ময়মনসিংহ রেলপথে ট্রেন চলাচল বন্ধ রয়েছে।

About

আরও পড়ুন...

কুয়েতে তরুন সফল উদ্যোক্তা

কুয়েতে সাধারণ এক গাড়িচালক হিসেবে প্রবাস জীবন শুরু। সেই থেকে কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমে ধীরে ধীরে সফল ব্যবসায়ীতে পরিণত হয়েছেন । বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশ থেকে নিত্যব্যবহার্য পণ্য আমদানি করে এরই মধ্যে দেশটিতে বিশাল বাজার তৈরি করে ফেলেছেন তরুণ এই প্রবাসী।শরীফ মোহাম্মদ মিজানুর রহমান।।  মোহাম্মদ শহিদুল ইসলাম (৩৮)। বন্ধুরা তাঁকে সম্মান করে মুফতি নামে ডাকেন। গ্রামের বাড়ি পিরোজপুরের কাউখালী উপজেলার বেকুটিয়া গ্রামে। শহিদুল ইসলামের বাবা মুহাম্মদ সুলতান আলী পেশায় একজন কৃষক। বাংলাদেশে থাকার সময় শহিদুল ইসলাম রাজধানীর মিরপুরের মাদ্রাসা দারুল উলুম থেকে দাওরায়ে হাদিস বিষয়ে পড়াশোনা করেন এবং সর্বোচ্চ ডিগ্রি মুফতি উপাধি অর্জন করেন। এরপর কিছুদিন দেশে একটি মাদ্রাসায় শিক্ষকতাও করেন তিনি। শহিদুল ইসলাম জানান, ২০০৫ সালে কুয়েতে এসে কুয়েতি  নাগরিকের ওখানে গাড়িচালক হিসেবে তিনি দুই বছর কাজ করেন। সে কাজের সূত্রে কুয়েতের বিভিন্ন স্থান ও বাজার সম্পর্কে পরিচিত হন তিনি। পরে গাড়ি চালানো বাদ দিয়ে তিনি কয়েকটি প্রতিষ্ঠানে বিক্রয়কর্মীর চাকরি  করেন।  পাশাপাশি ছোট খাট …

error: Content is protected !!