Home / কুয়েত / কুয়েতে বাংলাদেশি শ্রমিকদের বিক্ষোভ পরিকল্পনা, দূতাবাসের সহযোগিতায় প্রত্যাহার

কুয়েতে বাংলাদেশি শ্রমিকদের বিক্ষোভ পরিকল্পনা, দূতাবাসের সহযোগিতায় প্রত্যাহার

মঈন উদ্দিন সরকার সুমন কুয়েত থেকে: কুয়েতে কয়েকটি পরিচ্ছন্নতা কোম্পানির শ্রমিকরা বেতন বাড়ানোর দাবীতে প্রায় ৫০ হাজার শ্রমিক নিয়ে আগামী রোববার বিক্ষোভ করার পরিকল্পনা করছিল। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এমন সংবাদ পেয়ে কুয়েত শ্রম অধিদপ্তরের কর্মকর্তা বৃন্দ বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রতিনিধির সহযোগিতায় জিলিব আল সুয়েখ, ফরওয়ানীয়া ও খাইতানে শ্রমিকদের কয়েকটি বাসস্থান পরিদর্শন করে ধর্মঘট প্রতিহত করতে সক্ষম হন।
এসব কোম্পানীর সর্বনি¤œ বেতন ৬০ দিনার ( বাংলাদেশের প্রায় ১৮ হাজার টাকা) এ থেকে বাড়িয়ে ৯০ দিনার করার দাবিতে শ্রমিকরা ধর্মঘট ডাকার পরিকল্পনা করছিল।
কুয়েতস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রথম শ্রম সচিব কে. এম. আলী রেজা জানান শ্রম ও সমাজ মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাগন শ্রমিকদের তাদের চাকুরির চুক্তির প্রতি শ্রদ্ধাশীল থেকে চুক্তির সময় পর্যন্ত কাজ করার আহবান করেন। এবং তাদের চাকুরির চুক্তির মেয়াদ শেষে চুক্তির নবায়ন এর সময় মালিক পক্ষকে বেতন বাড়ানোর জন্য অনুরোধ করবেন। না হয় ভাল বেতনে চাকুরি পেলে সেখানে যেতে শ্রমিকদের সকল সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন।
মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ শ্রমিকদের বোঝান যে কুয়েত আইন অনুসারে প্রবাসী শ্রমিকদের বেতন বাড়ানোর জন্য ধর্মঘট পালন করার অধিকার নেই। এর ফলে শ্রম মন্ত্রণালয় তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে।
শ্রম সচিব কে. এম. আলী রেজা শ্রমিকদের কুয়েতের আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকার পরামর্শ দিয়ে বলেন চাকুরির চুক্তির মেয়াদ পর্যন্ত কাজ করেন, পাশাপাশি নিজ দক্ষতায় বেশি বেতনের চাকুরী খোজেঁ আইন অনুসারে বৈধ ভাবে নতুন চাকুরিতে যোগদেন। প্রবাসীদের প্রতি বাংলাদেশের সুনাম ক্ষুন্ন হয় এমন কাজ থেকে বিরত থাকার আহবান করেন।

[email protected]

আরও পড়ুন...

কুয়েতে গণমাধ্যম কর্মীদের সঙ্গে নব নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতের মতবিনিময় সভা

বাংলাদেশে আটকে পড়া প্রবাসীদের ব্যাপারে উপসাগরীয় দেশ গুলোর রাষ্ট্রদূতগন কুয়েতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে …