Home / বিশ্ব / পার্লামেন্টে যোগ দিচ্ছে না সু চির দল-

পার্লামেন্টে যোগ দিচ্ছে না সু চির দল-

সোমবারের পার্লামেন্ট অধিবেশনে যোগ দিচ্ছে না মিয়ানমারের প্রধান বিরোধী দল ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসি (এনএলডি)। সম্প্রতি অনুষ্ঠিত উপনির্বাচনের পর আগামী সোমবার পার্লামেন্টের প্রথম অধিবেশন বসার কথা মিয়ানমারে। এই অধিবেশনে নবনির্বাচিত বিরোধী এমপিদের শপথ বাক্য পাঠ করাকে কেন্দ্র করে মিয়ানমারে সরকার ও বিরোধীপক্ষের মধ্যে নতুন সঙ্কট সৃষ্টি হয়। অচলাবস্থার মধ্যে অবশেষে গণতান্ত্রিক নেত্রী অং সান সু চির নেতৃত্বাধীন এনএলডি পার্লামেন্টের নতুন অধিবেশন বর্জন করার সিদ্ধান্ত নেয়। গত এপ্রিলে অনুষ্ঠিত উপনির্বাচনে সুচি তার দলের ৪২ সদস্যের সঙ্গে পার্লামেন্ট সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন। তবে শপথবাক্য পাঠকে কেন্দ্র করে তাদের পার্লামেন্টে যোগদান অনিশ্চিত হয়ে পড়ে। শপথবাক্যে থাকা সংবিধানের ‘রক্ষকের’ বদলে ‘শ্রদ্ধা’ শব্দটি উচ্চারণের দাবিতে অনড় থাকে এনএলডি। উল্লেখ্য, বিরোধীরা আগে থেকেই বর্তমান সংবিধানকে অগণতান্ত্রিক বলে সমালোচনা করে আসছে। মিয়ানমারের বর্তমান সংবিধান প্রণয়ন হয় সামরিক জান্তাদের শাসনামলে। এ ব্যাপারে এনএলডির মুখপাত্র ও নবনির্বাচিত পার্লামেন্ট সদস্য ওন কিয়াং বলেন, একমাত্র শপথবাক্যের বিতর্কিত শব্দগুলো পরিবর্তন করলেই তারা পার্লামেন্টের অধিবেশনে যোগ দেবেন। দীর্ঘ ৫০ বছরের নিষ্পেষণমূলক সামরিক শাসনের অবসান হয় গত বছর, যখন মিয়ানমারে একটি তথাকথিত বেসামরিক সরকার গঠিত হয়। সামরিক বাহিনী সমর্থিত হলেও এই সরকার ক্ষমতায় আসার পর পরই বেশকিছু রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক সংস্কার কর্মসূচি গ্রহণ করে। এর অংশ হিসেবে বিরোধী দল প্রথমবারের মত নির্বাচনে জয়লাভ করে পার্লামেন্টে যাওয়ার সুযোগ লাভ করে।

আরও পড়ুন...

কানাডার সীমান্ত খুলছে

আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থী, অবিবাহিত দম্পতি (বয়ফ্রেন্ড-গার্লফ্রেন্ড) এবং গুরুতরভাবে অসুস্থ ব্যক্তির আত্মীয়-স্বজনদের জন্যে খুলে দেওয়া হয়েছে কানাডার …