Home / দেশ / বগুড়ায় নিখোঁজের ২ দিন পর শিশুর লাশ উদ্ধার ঃ আটক ১

বগুড়ায় নিখোঁজের ২ দিন পর শিশুর লাশ উদ্ধার ঃ আটক ১

নজরুল ইসলাম মিন্টু বগুড়া জেলা প্রতিনিধি : বগুড়া শহরের বড়গোলা এলাকা থেকে নিখোঁজ হওয়ার ২ দিন পর উম্মে সালমা নামের ১৭ মাসের শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মরদেহের শরীরে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে রকি (১৬) নামের এক কিশোরকে আটক করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার দিকে একই এলাকার জনৈক বিটু নামের এক ব্যক্তির মালিকানাধীন ভাড়াটিয়ার বাসা থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত শিশু বড়গোলা ভাণ্ডারি লেনের গোলাম রব্বানী নামের এক ফুটপাথ ব্যবসায়ীর মেয়ে এবং আটককৃত কিশোর রকি শহরের ফুলতলা মধ্যপাড়া এলাকার একটি বেসরকারি লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানিতে কর্মরত বাবলুর ছেলে। সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি/হেড কোয়ার্টার) গাজিউর রহমান, বগুড়া সদর পরিদর্শক (তদন্ত) নুর-এ-আলম এবং ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নবীউল ইসলাম লাশ উদ্ধারের কথা স্বীকার করেছেন।
জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে বাড়ির সামনে খেলারত অবস্থায় হঠাৎ নিখোঁজ হয়ে যায় উম্মে সালমা। এরপর অনেক খোঁজাখুঁজি করে তাকে না পাওয়ায় ওই রাতেই বগুড়া সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন শিশুটির বাবা। বৃহস্পতিবার উল্লেখিত সময়ে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিটুর বাসায় অভিযান চালিয়ে একটি স্টোররুমের ভেতর থেকে ছুরিকাঘাতে নিহত উম্মে সালমার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। তবে আসামি শনাক্তকরণ, গ্রেফতারসহ তদন্তের স্বার্থে তাৎক্ষণিকভাবে বিস্তারিত তথ্য জানানো সম্ভব নয় বলেও উল্লেখ করেন পুলিশের কর্মকর্তারা।

বগুড়ায় নিখোঁজের ২ দিন পর শিশুর লাশ উদ্ধার ঃ আটক ১
নজরুল ইসলাম মিন্টু বগুড়া জেলা প্রতিনিধি : বগুড়া শহরের বড়গোলা এলাকা থেকে নিখোঁজ হওয়ার ২ দিন পর উম্মে সালমা নামের ১৭ মাসের শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মরদেহের শরীরে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে রকি (১৬) নামের এক কিশোরকে আটক করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার দিকে একই এলাকার জনৈক বিটু নামের এক ব্যক্তির মালিকানাধীন ভাড়াটিয়ার বাসা থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত শিশু বড়গোলা ভাণ্ডারি লেনের গোলাম রব্বানী নামের এক ফুটপাথ ব্যবসায়ীর মেয়ে এবং আটককৃত কিশোর রকি শহরের ফুলতলা মধ্যপাড়া এলাকার একটি বেসরকারি লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানিতে কর্মরত বাবলুর ছেলে। সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি/হেড কোয়ার্টার) গাজিউর রহমান, বগুড়া সদর পরিদর্শক (তদন্ত) নুর-এ-আলম এবং ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নবীউল ইসলাম লাশ উদ্ধারের কথা স্বীকার করেছেন।জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে বাড়ির সামনে খেলারত অবস্থায় হঠাৎ নিখোঁজ হয়ে যায় উম্মে সালমা। এরপর অনেক খোঁজাখুঁজি করে তাকে না পাওয়ায় ওই রাতেই বগুড়া সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন শিশুটির বাবা। বৃহস্পতিবার উল্লেখিত সময়ে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিটুর বাসায় অভিযান চালিয়ে একটি স্টোররুমের ভেতর থেকে ছুরিকাঘাতে নিহত উম্মে সালমার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। তবে আসামি শনাক্তকরণ, গ্রেফতারসহ তদন্তের স্বার্থে তাৎক্ষণিকভাবে বিস্তারিত তথ্য জানানো সম্ভব নয় বলেও উল্লেখ করেন পুলিশের কর্মকর্তারা।

About

আরও পড়ুন...

ঈদের কেনা কাটায় সতর্ক না হলে পরিবারের জন্য মৃত্যু কিনে আমার মতো হবে-ক্যাব চট্টগ্রাম

বৈশ্বিক মহামারী করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের সংক্রমণ যখন ক্রমাগত বাড়ছে, সরকার জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞের পরামর্শে ২ সপ্তাহের …

error: Content is protected !!