Home / শীর্ষ সংবাদ / ব্রাজিলে মাদকচক্রের সঙ্গে পুলিশের গোলাগুলি, নিহত ২৫

ব্রাজিলে মাদকচক্রের সঙ্গে পুলিশের গোলাগুলি, নিহত ২৫

ব্রাজিল থেকে জহিরুল ইসলাম বশিরঃ ব্রাজিলের রিও ডি জেনিরোয় গোলাগুলিতে এক পুলিশ কর্মকর্তাসহ অন্তত ২৫ জন নিহত হয়েছে। তবে এই ঘটনায় কোন বাংলাদেশী হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

রিও ডি জেনিরোয় শহরটিতে পুলিশি অভিযান চলার সময় এ ঘটনা ঘটে। মাদক পাচারকারীরা শিশুদেরকে দলে ভেড়াচ্ছে এমন খবর পেয়ে পুলিশ এই অভিযান শুরু করে।

স্থানীয় গনমাধ্যম থেকে জানা যায় একটি মেট্রো ট্রেনের দুই যাত্রী গুলিবিদ্ধ হয়। তবে তারা বেঁচে গেছেন। সন্ত্রসীদের গুলিতে রিও ডি জেনিরোর একজন পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে।

প্রধান পুলিশ কর্মকর্তা রোনাল্ডো অলিভেইরা গনমাধ্যমকে বলেন, ‘রিওতে চালানো পুলিশি অভিযানের মধ্যে বৃহস্পতিবারের এই অভিযানেই সবচেয়ে বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে।’

স্থানীয় খবরে বলা হয়েছে, পুলিশ যে অপরাধ চক্রকে নিশানা করে অভিযান চালিয়েছে সে চক্রটি মাদক পাচার, খুন এবং অপহরণে জড়িত।

About Jahir Raihan

আরও পড়ুন...

কুয়েতে তরুন সফল উদ্যোক্তা

কুয়েতে সাধারণ এক গাড়িচালক হিসেবে প্রবাস জীবন শুরু। সেই থেকে কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমে ধীরে ধীরে সফল ব্যবসায়ীতে পরিণত হয়েছেন । বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশ থেকে নিত্যব্যবহার্য পণ্য আমদানি করে এরই মধ্যে দেশটিতে বিশাল বাজার তৈরি করে ফেলেছেন তরুণ এই প্রবাসী।শরীফ মোহাম্মদ মিজানুর রহমান।।  মোহাম্মদ শহিদুল ইসলাম (৩৮)। বন্ধুরা তাঁকে সম্মান করে মুফতি নামে ডাকেন। গ্রামের বাড়ি পিরোজপুরের কাউখালী উপজেলার বেকুটিয়া গ্রামে। শহিদুল ইসলামের বাবা মুহাম্মদ সুলতান আলী পেশায় একজন কৃষক। বাংলাদেশে থাকার সময় শহিদুল ইসলাম রাজধানীর মিরপুরের মাদ্রাসা দারুল উলুম থেকে দাওরায়ে হাদিস বিষয়ে পড়াশোনা করেন এবং সর্বোচ্চ ডিগ্রি মুফতি উপাধি অর্জন করেন। এরপর কিছুদিন দেশে একটি মাদ্রাসায় শিক্ষকতাও করেন তিনি। শহিদুল ইসলাম জানান, ২০০৫ সালে কুয়েতে এসে কুয়েতি  নাগরিকের ওখানে গাড়িচালক হিসেবে তিনি দুই বছর কাজ করেন। সে কাজের সূত্রে কুয়েতের বিভিন্ন স্থান ও বাজার সম্পর্কে পরিচিত হন তিনি। পরে গাড়ি চালানো বাদ দিয়ে তিনি কয়েকটি প্রতিষ্ঠানে বিক্রয়কর্মীর চাকরি  করেন।  পাশাপাশি ছোট খাট …

error: Content is protected !!