Home / দেশ / ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উন্নয়নে দলমত উদ্ধে কাজ করার আহবান

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উন্নয়নে দলমত উদ্ধে কাজ করার আহবান

খাইরুল আমিন কসবা প্রতিনিধি: সামাজিক দায়বদ্ধতাবৃদ্ধির পাশাপাশি পরিবেশ, প্রতিবেশ রক্ষায় তরুনদের সম্পৃক্তি করার লক্ষ্যে দিনব্যাপী আলোচনা সভায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উন্নয়নে দলমত উর্দ্ধে কাজ করার আহবান করেন। আজ শুক্রবার কাউতলীস্থ হাজী কে.বি ম্যানসনে রিভাইভ বাংলা ট্রাস্ট সভাকক্ষে ট্রাস্টের ত্রৈমাসিক সাধারন সভা অনুষ্ঠিত হয়।

নুরুজাম্মান ফারুকির সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন রিভাইভ বাংলা ট্রাস্টের চেয়ারম্যান শেখ সোহেল আহমেদ। সভায় বক্তব্য রাখেন, রিভাইভ বাংলা ট্রাস্ট এর প্রধান সমন্বয়ক আরিফুর রহমান নয়ন। এতে আরো বক্তব্য রাখেন বিশিষ্ট পরিবেশকর্মী সৈয়দ সাইফুল আলম, লুসিনাস ডিভাইনের প্রধান কার্য নির্বাহী সাজ্জাদুর রহমান, ডেপুটি ম্যানেজার জুয়েল রানা, রিভাইভ বাংলা ট্রাস্ট এর প্রতিষ্ঠাতা সদস্য রফিকুর রহমান রিমন, প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মোঃ হাবিবুর রহমান, প্রতিষ্ঠাতা সদস্য সফিকুর রহমান এবং প্রতিষ্ঠাতা সদস্য খাইরুল আমিন রাকিব।

শেখ সোহেল আহমেদ সারা জেলা থেকে আগত তরুনদের উদ্দ্যেশে বলেন, আমরা আপনাদের সহযোগিতায় এগিয়ে আসতে চাই। তরুনদের শুধুমাত্র নিজেদের কে নিয়ে ব্যস্ত থাকলে হবে না। জাতির কল্যানে আত্মনিয়োগ করতে হবে। স্থানীয় সমস্যা সমাধানে আমাদের নিজেদের নিজ নিজ অবস্থান থেকে এগিয়ে আসতে হবে। আমরা ট্রাস্টের পক্ষ হতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উন্নয়নের দলমত নির্বিশেষে কাধে কাধ মিলিয়ে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করছি। আশাকরি সকল সীমাবদ্ধতা জয় করে মানুষের কল্যানে আপনারা এগিয়ে আসবেন।

আরিফুর রহমান নয়ন রিভাইভ বাংলা ট্রাস্ট এর অতীতের কার্যক্রম তুলে ধরেন এবং ভবিষ্যত পরিকল্পনা নিয়ে আলোচনা করেন। সকল এলাকা প্রতিনিধি এবং সদস্যগণকে ট্রাস্ট এর কার্যক্রম সমূহের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ জানান এবং পবিত্র কোরবানি ঈদে অসহায় এবং দুঃস্থদের সাহায্য করার জন্য অনুরোধ জানান। শিশুশ্রম ও পথশিশুদের উপরে একটি প্রতিবেদন পেশ করেন।

সাজ্জাদুর রহমান বলেন, আমরা লুমিনাস ডিভাইনের পক্ষ হতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সকল প্রকার উন্নয়নমূলক কাজে সার্বিক সহযোগিতা করতে আগ্রহী। রিভাইভ বাংলা ট্রাস্টের সাথে যেকোন সমাজসেবামূলক কাজে তরুণদের সাথে অংশ গ্রহন করবে। আপনারা ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করুন। দেখবেন সমাজের অধিকাংশ সমস্যাই স্থানীয় ভাবে সমাধান হয়ে যাবে।

রফিকুর রহমান রিমন বলেন, আমার মানুষের সুখ, দুঃখের অংশিদার হতে চাই। ইতিমধ্যে ঝড়, বন্যাসহ প্রকৃতিক দূযোগের বিশেষ ভূমিকা রেখেছি। রমজানে ও ঈদে অসচ্ছল পরিবারগুলোকে আপনাদের মাধ্যমে সহযোগিতা করেছি। আমরা চাই আমাদের এই কার্যক্রম আরো ব্যাপক ভাবে ছড়িয়ে পড়–ক। আর এর জন্য সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন।

সভায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ও থানা পর্যায়ের সকল প্রতিনিধিসহ শতাধিক সেচ্ছাসেবক সভায় অংশগ্রহন করে।

আরও পড়ুন...

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে শুভেচ্ছা স্বরুপ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ৫টি কুকুর উপহার দিল ভারতীয় সেনাবাহিনী।

মোঃ রাসেল ইসলাম,বেনাপোল প্রতিনিধি: বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে শুভেচ্ছা স্বরুপ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ৫টি কুকুর উপহার দিল ভারতীয় সেনাবাহিনী।বেনাপোল …

error: Content is protected !!